sliderস্থানীয়

স্কুল কমিটির নির্বাচন বাতিল চেয়ে শিক্ষা অফিসার বরাবরে আবেদন

স্বরূপকাঠি উপজেলা প্রতিনিধি : স্বরূপকাঠি ২১নং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি/সহ-সভাপতি পদের নির্বাচন বাতিলের দাবি জানিয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিসার বরাবরে লিখিত আবেদন করেন স্কুল কমিটির পাঁচ সদস্য।
শুক্রবার বিকালে ৯ সদস্যের উপস্থিতিতে রিটার্নিং কর্মকর্তা সিমা রানি ৩০মিনিট সময় নির্ধারন করে ঐ দুই পদের জন্য নির্বাচনী কার্যক্রম শুরু করে। নির্ধারীত সময়ের মধ্যে জমিদাতা সদস্য স্বরূপকাঠিতে উপস্থিত হলেও ভোট কেন্দ্র এসে উপস্থিত হতে পারেননি। জমিদাতা সদস্য অসুস্থ থাকায় ঐ পাঁচ জন সদস্য রির্টানিং কর্মকর্তার কাছে একটু সময় প্রার্থনা করে। সভাপতি প্রার্থীর ওহিদুজ্জামান মানিকের বাঁধার কারনে রিটার্নিং কর্মকর্তা নির্বাচনী কার্যক্রম শেষ করার সাথে সাথে জমিদাতা সদস্য এসে উপস্থিত হন। ফলাফল ঘোষণার সময় উপস্থিত সভাপতি মিঠুন আচার্য্য অনুজ ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর এবং তার সমর্থকরা হট্টগোল শুরুকরে এবং ফলাফল বয়কট করে রিটার্নিং কর্মকর্তা বরাবর এবং উপজেলা শিক্ষা অফিসার ও সহকারী শিক্ষা অফিসার বরাবরে পুনরায় নির্বাচনের দাবি করে লিখিত অভিযোগ দেন।
সভাপতি প্রার্থী মিঠুন আচার্য্য অনুজ বলেন, জমিদাতা সদস্যকে অপমান করা হয়েছে। সে অসুস্থ ছিলো বিধায় তার প্রতিনিধি হিসেবে তার ছেলে এসেছিলো কিন্তু জমিদাতার ছেলে যখন সে জানতে পারে সে ভোটে দিতে পারবেনা তখন তার বাবাকে আনতে চলে যান। জমিদাতা সদস্য অসুস্থ বিধায় যথা সময়ের মধ্যে কেন্দ্র আসতে পারেনাই। আমরা জমিদাতার শারীরিক অবস্থার কথা বিবেচনা করে একটু সময় প্রার্থনা করেছিলাম কিন্তু সভাপতি প্রার্থী ওহিদুজ্জামন মানিকের বাঁধার কারনেই জমি দতা ভোট দিতে পারেনাই। তাই আমরা ফলাফল বর্জন করে পুনরায় নির্বাচনের আবেদন জানিয়েছি।
এদিকে ওহিদুজ্জামন মানিক বলেন,নির্ধারিত সময়ের পর কোন প্রকার সময় দেয়ার কোন সুযোগ নাই।
রিটার্নিং কর্মকর্তা সীমা রানী জানান,সকলকে অবিহত করে জমিদাতাকে আনতে গেছিলো। নির্ধারিত সময় শেষ হয়েছে তবে তার পরেও আপনারা প্রার্থীরা যদি মানবিক দিক বিবেচনায় জমিদাতার জন্য একটু সময় দেন তাহলে আমি তার জন্য অপেক্ষা করবো। সভাপতি প্রার্থীর ওহিদুজ্জামান মানিক এর অপোজ এর কারনে আমি নির্বাচন সম্পন্ন করি। নির্বাচনে ১১জন সদস্যের মধ্যে ৯জন উপস্থিত ছিলো।
এ বিষয় ঐ স্কুলের প্রধান শিক্ষক শামশুল হকের মোবাইল নম্বরে কল দিলে মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়।

Related Articles

Back to top button