slider

চরম অনিয়ম আর অব্যবস্থাপনায় চলছে দেশ-এবি পার্টি

পতাকা ডেস্ক: আমার বাংলাদেশ (এবি) পার্টির মাসব্যাপী টানা গণ-ইফতার কর্মসূচির ১৬তম দিনে আয়োজিত সমাবেশে নেতারা বলেন চরম অনিয়ম ও অব্যবস্থাপনায় চলছে দেশ। সমাবেশে বক্তারা বলেন, গতকাল বিদ্যুতের মেইন লাইনের নীচে তৈরিকৃত ঘরে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে একই পরিবারের পাঁচজন মারা গেছে। অভাবের তাড়নায় এক মা তার শিশু সন্তানকে বাজারে বিক্রি করেছে। সড়কের অব্যবস্থাপনায় মূল্যবান জীবন ঝরে পড়ছে প্রতিদিন। সীমান্তে গুলী করে বাংলাদেশের নাগরিক হত্যা নিত্য নৈমিত্তিক ব্যপার হয়ে দাড়িয়েছে। অনির্বাচিত দখলদার সরকারের অনিয়ম আর অব্যবস্থাপনায় দেশ যেন এক অনিশ্চিত গন্তব্যের পথে চলছে। নেতৃবৃন্দ বলেন এই মৃত্যুর মিছিল আর অভাব জাতিকে ১৯৭২ থেকে ৭৫ এর কথাই মনে করিয়ে দেয়। একটি অনির্বাচিত দখলদার সরকারের চরম অনিয়ম আর অব্যবস্থাপনার জন্য তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেছে এবি পার্টি।
বিজয় নগরস্থ এবি পার্টির কেন্দ্রীয় কার্যালয় সংলগ্ন বিজয় একাত্তর চত্বরে আয়োজিত গণ ইফতারে এদিন প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ভাসানী অনুসারী পরিষদের আহবায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ রফিকুল ইসলাম বাবলু। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ভাসানী অনুসারী পরিষদের সদস্যসচিব ড. আবু ইউসুফ মোহাম্মদ সেলিম, এবি পার্টির সদস্যসচিব মজিবুর রহমান মঞ্জু সহ এবি পার্টির কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ। এছাড়াও অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভাসানী অনুসারী পরিষদের যুগ্ম আহবায়ক মোঃ ইসমাইল, বাবুল বিশ্বাস, যুগ্ম সদস্যসচিব হাবিবুর রহমান, বীর মুক্তিযোদ্ধা জাহাঙ্গীর হোসেন, কেন্দ্রীয় নেতা আনোয়ার হোসেন, মোঃ আকতার হোসেন, আব্দুর রহমান, মোঃ কামরুজ্জামান সহ ভাসানী অনুসারী পরিষদের নেতৃবৃন্দ।


প্রধান অতিথির বক্তব্যে রফিকুল ইসলাম বাবলু বলেন, বর্তমান আওয়ামীলীগ সরকার নানা ছলনায় জনগণকে প্রতারিত করে বার বার ক্ষমতায় আসছে। এবি পার্টি সহ আমরা সকল বিরোধীদল এই সরকার পতনের একদফা আন্দোলন করছি। আমরা আপনাদেরকে ধন্যবাদ জানাই আপনারা এই প্রতারণামূলক নির্বাচনে অংশ নেন নাই। রমজান শেষে আমরা এই পতন আন্দোলনের জোরদার করবো ইনশাআল্লাহ। এই দখলদার সরকারের অনিয়ম আর দূর্নীতিতে দেশ ডুবতে বসেছে, যা আমরা আর চলতে দিতে পারিনা।

মজিবুর রহমান মঞ্জু বলেন, আমাদের গণ ইফতারে আপনারা যারা উপস্থিত আছেন, যাদের অর্থনৈতিক অবস্থা ভালো নয় তাদের বুঝতে হবে নিজের অবস্থা পরিবর্তনের জন্য পরিশ্রম করতে হবে। মানুষের কাছে হাতপাতা সম্মান জনক নয়। তিনি বলেন, দেশের মানুষ চরম সমস্যায় রয়েছে। অর্থনীতি ভেঙ্গে পরেছে। আমরা দেশ পুনর্গঠনের কাজ করার উদ্যোগ নিয়েছি। এখানে সবাইকে শামিল হতে হবে।

ভাসানী অনুসারী পরিষদের সদস্যসচিব ড. আবু ইউসুফ সেলিম বলেন, আওয়ামীলীগ আজ ক্ষমতা দখল করে দেশের জনগণের টাকা লুট করে মানুষকে নিঃস্ব করে দিয়েছে। এই জালিমের মসনদ ভাঙতে হবে। তিনি বলেন, মাওলানা ভাসানী বলেছিলেন, আমার দেশের মানুষ কেউ খাবে কেউ খাবেনা, তা হবেনা। বর্তমান শাসকেরা সমাজে যে বৈষম্য তৈরি করেছে তা ভেঙ্গে বৈষম্যহীন সমাজ আমাদের নতুন করে তৈরি করতে হবে।
তিনি গণ ইফতারের মতো মহতী উদ্যোগের জন্য এবি পার্টির নেতৃবৃন্দকে ধন্যবাদ জানাই।

গণ ইফতারে আরও উপস্থিত ছিলেন এবি পার্টির যুগ্ম আহবায়ক বিএম নাজমুল হক, দফতর সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুল্লাহ আল মামুন রানা, প্রচার সম্পাদক আনোয়ার সাদাত টুটুল, যুবপার্টির আহবায়ক এবিএম খালিদ হাসান, সহকারী সদস্যসচিব শাহ আব্দুর রহমান, মহানগর দক্ষিণের যুগ্ম আহবায়ক আনোয়ার ফারুক, উত্তরের যুগ্ম আহবায়ক ফিরোজ কবির, সদস্যসচিব সেলিম খান, দক্ষিণের যুগ্ম সদস্য সচিব আহমাদ বারকাজ নাসির, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আমেনা বেগম, রুনা হোসাইন, মশিউর রহমান মিলু, রিপন মাহমুদ, যুবপার্টি মহানগর উত্তরের সদস্যসচিব শাহীনুর আক্তার শীলা, পল্টন থানা আহবায়ক আব্দুল কাদের মুন্সি, সদস্যসচিব রনি মোল্লা, যাত্রাবাড়ী থানা আহবায়ক সিএমএইচ আরিফ সহ কেন্দ্রীয় ও মহানগরীর বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button