sliderঅর্থনৈতিক সংবাদশিরোনাম

৪৮ জেলায় তরুণদের ফ্রিল্যান্সিং প্রশিক্ষণের জন্য প্রকল্প অনুমোদন

৪ হাজার ৪৫৩ কোটি টাকা ব্যয়ে মোট ৯টি প্রকল্প একনেকে অনুমোদন

দেশের ৪৮টি জেলায় শিক্ষিত ও তরুণ চাকরিপ্রার্থীদের ২৯৯ কোটি ৯৯ লাখ টাকা ব্যয়ে ফ্রিল্যান্সিং প্রশিক্ষণ প্রদানের জন্য একটি প্রকল্প অনুমোদন করেছে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক)।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে এনইসি সম্মেলন কক্ষে একনেক চেয়ার ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে একনেক সভায় এ অনুমোদন দেয়া হয়।

ফ্রিল্যান্সিং প্রশিক্ষণসহ মোট ৪ হাজার ৪৫৩ কোটি টাকা ব্যয়ে মোট ৯টি উন্নয়ন প্রকল্প অনুমোদন দিয়েছে একনেক।

‘৪৮টি জেলায় শিক্ষিত যুব চাকরিপ্রার্থীদের জন্য ফ্রিল্যান্সিং প্রশিক্ষণের মাধ্যমে কর্মসংস্থান সৃষ্টি’ নামক প্রকল্পটি ২০২৬ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে বাস্তবায়ন করা হবে।

সংবাদ সম্মেলনে পরিকল্পনা বিভাগের সিনিয়র সচিব সত্যজিৎ কর্মকার জানান, ‘আজকের বৈঠকে ১০টি প্রকল্প উপস্থাপন করা হয়েছে। এর মধ্যে নয়টি প্রকল্পে অনুমোদন দেয়া হয়েছে।’

তিনি বলেন, ৯টি প্রকল্পের মোট প্রাক্কলিত ব্যয় ৪ হাজার ৪৫৩ কোটি ২১ লাখ টাকা (এখানে সংশোধিত তিনটি প্রকল্পের অতিরিক্ত ব্যয় এখানো যুক্ত করা হয়েছে)।

এর মধ্যে সরকারি তহবিল থেকে ৩ হাজার ৯০৯ কোটি ২১ লাখ টাকা, সংস্থার নিজস্ব তহবিল থেকে ২৮৯ কোটি ৫৭ লাখ টাকা এবং বৈদেশিক ঋণ ২৫৪ কোটি ৪৩ লাখ টাকা বিদেশি ঋণ হিসেবে পাওয়া যাবে বলে জানান পরিকল্পনা সচিব।

নতুন অন্য প্রকল্পগুলোর মধ্যে রয়েছে- ২০২৭ সালের ডিসেম্বর মাসের মধ্যে বাস্তবায়নের সময়সীমা ধরে ১ হাজার ১২৩ কোটি ৪০ লাখ টাকা ব্যয়ে ‘ঢাকা জেলায় গুরুত্বপূর্ণ গ্রামীণ অবকাঠামোর উন্নয়ন’; ৫২৯ কোটি ৬১ লাখ টাকা ব্যয়ে পিডিবিএফের কার্যক্রম সম্প্রসারণ(দ্বিতীয় পর্যায়); ৬০ কোটি ৯৯ লাখ টাকা ব্যয়ে বাংলাদেশের টেকসই উন্নয়ন পথসমূহে জলবায়ু পরিবর্তন অভিযোজন সমন্বিতকরণ; ৭৬১ কোটি ৩১ লাখ টাকা ব্যয়ে ওয়েস্ট জোন পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড এলাকার জন্য স্মার্ট প্রিপেইড মিটারিং (২য় পর্যায়) এবং ১৩৩ কোটি ৪৮ লাখ টাকা ব্যয়ে খুলনা, রংপুর, রাজশাহী, বরিশাল ও সিলেটে দুদকের বিভাগীয় কার্যালয়ের নতুন ভবন নির্মাণ এবং ময়মনসিংহ বিভাগীয় কার্যালয়ের বহুতল ভবনের হিসেবে সম্প্রসারণ।

তিনটি সংশোধিত প্রকল্প হচ্ছে- ১৫১ কোটি ৩৯ লাখ টাকা অতিরিক্ত ব্যয়ে বিএসএমএমইউর অধীনে সুপার স্পেশালাইজড হাসপাতাল স্থাপন (২য় সংশোধিত); ২৯০ কোটি ৬৫ লাখ টাকার অতিরিক্ত ব্যয়ে ক্লাইমেট রেজিলিয়েন্ট ইনফ্রাস্ট্রাকচার মেইনস্ট্রিমিং প্রজেক্ট (সিআরআইএমপি) (১ম সংশোধিত) এবং ৩ কোটি ৩১ লাখ টাকা ব্যয়ে আরবান রেজিলিয়েন্স প্রজেক্ট (ইউআরপি): প্রজেক্ট কো-অর্ডিনেশন অ্যান্ড মনিটরিং ইউনিট (পিসিএমইউ), (চতুর্থ সংশোধিত)।

এছাড়া বৈঠকে সেকেন্ডারি এডুকেশন সেক্টর ইনভেস্টমেন্ট প্রোগ্রামের (৩য় সংশোধিত) সময়সীমা ২০২৪ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়।

কিন্তু চট্টগ্রাম মহানগরী প্রকল্পের স্যুয়ারেজ সিস্টেম স্থাপন (ফেজ-১) প্রকল্পের প্রথম সংশোধনী সভায় অনুমোদন পায়নি।

পরিকল্পনা সচিব বলেন, বৈঠকে প্রক্রিয়াধীন বিদেশী ঋণ ও অনুদান বিতরণে ঝামেলামুক্তভাবে সমন্বিত পদক্ষেপ গ্রহণের ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন প্রধানমন্ত্রী।

তিনি প্রকল্পগুলোর সেকশন প্রসেস এবং চলমান প্রকল্পগুলো দ্রুত শেষ করার বিষয়টিকে সর্বাধিক গুরুত্ব দেয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দেন।

সূত্র : ইউএনবি

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button