sliderরাজনীতিশিরোনাম

স্বৈর শাসনের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলার কোন বিকল্প নেই – এবি পার্টি

পতাকা ডেস্ক: দেশের সীমান্ত প্রতিদিন আমাদের জনগন শহীদ হচ্ছে। ভারতীয় সাংস্কৃতিক আগ্রাসনের কবলে দেশের পারিবারিক বন্ধন গুলো আজ ভেঙ্গে পরেছে। শোষণ থেকে মুক্তি পাওয়ার যে আকাঙ্খা নিয়ে মুক্তিযুদ্ধ করে আমরা দেশ স্বাধীন করেছি তা আজ সুদুর পরাহত। ভারত যেভাবে নিজেদের করদ রাজ্য বানাতে আওয়ামীলীগকে ব্যবহার করছে আর আওয়ামীলীগ ক্ষমতা চিরস্থায়ী করতে যেভাবে পার্শ্ববর্তী দেশের পদলেহন করছে তাতে বাংলাদেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষায় আওয়ামীলীগের বিরুদ্ধে বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলার বিকল্প নেই বলে দাবি করেছেন এবি পার্টির নেতৃবৃন্দ।
কেন্দ্রীয় কার্যালয় সংলগ্ন বিজয় একাত্তর চত্বরে আয়োজিত মাসব্যাপী গণ ইফতারের ২৪ তম দিনের আলোচনায় এই দাবি করেন বক্তারা। আজকের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ মুসলিমগীগের মহাসচিব কাজী আবুল খায়ের। বক্তব্য রাখেন এবি পার্টির যুগ্ম সদস্যসচিব ব্যারিস্টার আসাদুজ্জামান ফুয়াদ, বাংলাদেশ মুসলিমলীগের সহ সভাপতি আব্দুল হান্নান, সাবেক মহাসচিব আতিকুল হক সহ এবি পার্টির কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে কাজী আবুল খায়ের বলেন, বাংলাদেশ স্বাধীন হয়েছিলো এদেশের মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠা ও অর্থনৈতিক মুক্তির জন্য, ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠার জন্য। কিন্তু মানুষ আজও মুক্তি পায়নি। স্বাধীনতার চেতনা বিক্রিকারী আওয়ামীলীগ এখন জনগণের ভোটের অধিকার পর্যন্ত কেড়ে নিয়েছে।
তিনি বলেন আজ পত্রিকায় দেখলাম বিশ্বের বিলিওনিয়ারদের তালিকায় বাংলাদেশের একজনের নাম। তিনি আওয়ামীলীগের ক্ষমতার সুযোগ নিয়ে জনগণের টাকা লুটে বিদেশে পাচার করে এখন সিঙ্গাপুরে সাম্রাজ্য গড়েছেন। এই লুটতরাজ দেশের মানুষ মেনে নেবেনা।


ব্যারিস্টার ফুয়াদ বলেন, দেশের মানুষের টাকা পাচার করে যারা বিলিয়নিয়ারের তালিকায় নাম উঠিয়েছে তারা দেশের শত্রু, জাতির শত্রু। এই সরকার বিদেশী প্রভুদের পদলেহন করে ক্ষমতা দখল করার কারণে আজ প্রতিদিন বর্ডারে আমাদের ভাইয়েরা খুন হচ্ছে। বিভিন্ন অপসংস্কৃতির কবলে পরে পরিবার সমুহ ধ্বংস হয়ে যাচ্ছে। তারা এখন আমাদের নির্বাচন ব্যবস্থায় হস্তক্ষেপ করে তাবেদার আওয়ামীলীগকে ক্ষমতায় বহাল রাখতে চায়। যা আমাদের দেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্বকে আজ হুমকির মুখে ফেলেছে। আমাদের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষায় তাই আওয়ামীলীগকে প্রতিরোধের কোন বিকল্প নাই।

গণ ইফতারে আরও উপস্থিত ছিলেন এবি পার্টির প্রচার সম্পাদক আনোয়ার সাদাত টুটুল, যুবপার্টির আহবায়ক এবিএম খালিদ হাসান, মহানগর উত্তরের আহবায়ক আলতাফ হোসাইন, মহানগর দক্ষিণের যুগ্ম আহবায়ক আনোয়ার ফারুক, আব্দুল হালিম খোকন, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল হালিম নান্নু, উত্তরের সদস্যসচিব সেলিম খান, কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মশিউর রহমান মিলু, আমেনা বেগম, রিপন মাহমুদ পল্টন থানা আহবায়ক আব্দুল কাদের মুন্সি, যাত্রাবাড়ী থানা সমন্বয়ক সিএমএইচ আরিফ সহ কেন্দ্রীয় ও মহানগরীর বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button