sliderরাজনীতি

লালমনিরহাটের ঘটনা ভয়াবহ সামাজিক নৈরাজ্যের প্রতিচ্ছবি-বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি

বাংলাদেশের বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক আজ গণমাধ্যমে প্রদত্ত এক বিবৃতিতে লালমনিহাটের বুড়িমারীতে ধর্ম অবমাননার গুজবে মানসিকভাবে অসুস্থ্য ব্যক্তিকে পিটিয়ে মেরে ফেলা ও তার লাশ আগুনে পুড়িয়ে ফেলার ঘটনাকে ‘নৃশংস বর্বরতা’ হিসাবে আখ্যায়িত করেছেন এবং বলেছেন পৈশাচিক এই বর্বরতা সামাজিক নৈরাজ্যের এক ভয়াবহ পরিস্থিতিকে তুলে ধরছে। কোন সুস্থ্য, বিবেকবান ও প্রকৃত ধর্মপ্রাণ মানুষ এই ধরনের বর্বরতাকে প্রশ্রয় দিতে পারে না। কোন সভ্য ও গণতান্ত্রিক সমাজ পিটিয়ে মানুষ ফেরে ফেলার ঘটনাকে কোনভাবেই অনুমোদন দিতে পারে না।
বিবৃতিতে তিনি এই ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান এবং বলেন এই ধরনের নৃশংসতাকে প্রশ্রয় তা দেশকে এক ভয়াবহ নৈরাজ্যের গহ্বরে নিক্ষিপ্ত করবে।
তিনি ক্ষোভের সাথে উল্লেখ করেন দেশ পরিচালনায় সরকারের রাজনৈতিক ও নৈতিক ক্ষমতা না থাকায় রাষ্ট্র ও সমাজের নানা স্তরে যা খুশী তাই করার বেপরোয়া কর্মকাণ্ড বেড়ে চলেছে। এই পরিস্থিতিতে মানুষের জানমাল-সম্ভ্রম চরম ঝুঁকির মধ্যে নিক্ষিপ্ত হয়েছে।
তিনি লালমনিরহাটের ঘটনার মদদ প্রদানকারীদের চিহ্নিত এবং এই নৃশংস ঘটনার জন্য দায়ীদের চিহ্নিত করে অবিলম্বে তাদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।
একই সাথে তিনি লালমনিরহাটের বর্বরোচিত ঘটনার নিরপেক্ষ ও বিশ^াসযোগ্য তদন্ত করারও আহ্বান জানান। তিনি সামাজিক নৈরাজ্য প্রতিরোধ ও মানুষের জানমাল-ইজ্জতের হেফাজতে রাজনৈতিক ও সামাজিক প্রতিরোধ জোরদার করারও আহ্বান জানান। বিজ্ঞপ্তি

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button