sliderস্থানীয়

বোয়ালমারীতে হেলমেট নাই তো তেল নাই, পুলিশের কড়াকড়ি নির্দেশ পাম্পগুলোতে

বোয়ালমারী (ফরিদপুর) প্রতিনিধি: ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে হেলমেট পরিধান ব্যতীত পাম্পগুলো ও দোকানগুলোতে থেকে মিলছে না মোটরসাইকেলের জ্বালানি তেল। হঠাৎ করেই এই বিষয়ে কড়াকড়ি আরোপ করেছে থানা পুলিশ।

উপজেলার দুটি তেলের পাম্পে পুলিশের পক্ষ থেকে “হেলমেট নাই তো তেল নাই” স্লোগান সম্বলিত ব্যানার টাঙিয়ে দেওয়া হয়েছে।

গত ১৮ মে থেকে এই নীতি বাস্তবায়নে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাঠে নেমেছেন।

পুলিশ বলছে, সড়ক-মহাসড়কে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় যত মানুষের প্রাণ যাচ্ছে, তাদের অধিকাংশ হেলমেট না পড়ার কারণে নিহত হয়েছেন।

সে কারণে শতভাগ হেলমেমট পরিধান নিশ্চিত করতে পুলিশ মাঠে নেমেছেন।

গত শনিবার বিকালে উপজেলার দুটি তেলের পাম্পে থানার এসআই মামুন ইসলামকে দেখা যায় পাম্পের একাধিক স্থানে “নো হেলমেট, নো ফুয়েল” এবং “হেলমেট নাই তো তেল নাই” স্লোগান সম্বলিত ব্যানার টাঙাতে। হেলমেট ব্যতিত কোন মোটরসাইকেল চালক পাম্পে তেল নিতে আসলে তাদেরকে তেল দিচ্ছেন না পাম্পের কর্মচারী। উপজেলার বিভিন্ন বাজারের তেলের দোকানগুলোতেও হেলমেট ছাড়া তেল দিতে নিষেধ করেছেন পুলিশ।

হেলমেট ব্যতীত তেল না দেওয়ার নীতি পাম্প কর্তৃপক্ষ বাস্তবায়ন করছে কিনা! তা তদারকি করছেন পুলিশ কর্মকর্তারা।

বোয়ালমারী পৌর মেয়র সেলিম রেজা লিপন মিয়া বলেন, হেলমেট ছাড়া যদি মোটরসাইকেল চালকরা তেল না পায় তাহলে তারা হেলমেট পড়তে বাধ্য হবে। সকলে যদি হেলমেট পড়ে সড়ক দুর্ঘটনায় মৃত্যু কমে যাবে। পুলিশ ভালো উদ্যোগ নিয়েছেন।

বোয়ালমারী থানার ভাপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সহিদুল ইসলাম বলেন, হেলমেট ছাড়া যদি পাম্প থেকে তেল না পায়, তবে বাধ্য হয়েই মোটরসাইকেল চালকরা হেলমেট পড়বে। এতে করে শতভাগ হেলমেট পরিধান নিশ্চিত করা যাবে। ফলে সড়কে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় প্রাণহানির সংখ্যা অনেকাংশ কমিয়ে আনা সম্ভব হবে।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button