sliderস্থানীয়

ফেনীতে জাপা নেতা সিরাজের নেতৃত্বে মৎস্য প্রকল্প দখল : পাউবোর পরিমাপে বাধা দিয়ে হামলা

আবদুল্যাহ রিয়েল,ফেনী প্রতিনিধি: ফেনীতে সোনাগাজীর মুহুরী প্রজেক্ট এলাকায় ভূমি বিরোধ কে কেন্দ্র করে যুবলীগ নেতা সোহেল চাকলাদারের ইজারাকৃত মৎস্য প্রকল্প জবর দখল চেষ্টা ও পরিমাপে বাধা দিয়ে অতর্কিত হামলার অভিযোগ উঠেছে জাতীয় পার্টি নেতা হাজী সিরাজ ও তার লেকজনের বিরুদ্ধে। এসময় ৭জন আহত হয়েছে বলে জানা গেছে। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেজবুকে হামলার একটি ভিডিও ভাইরাল হলে ব্যাপক সমালোচনার সৃষ্টি হয়।

এই ঘটনায় উপজেলা যুবলীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক সোহেল চাকলাদার বাদী হয়ে সোনাগাজী মডেল থানায় উপজেলা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক হাজী সিরাজুল ইসলাম এবং তার ক্যাডার বাহিনীর সদস্য আনোয়ার হোসেন, জয়নাল আবেদীন, গবি, নুর ইসলাম ও নুর আলমের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ৭/৮ জনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

আহতদের সোনাগাজী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে, তবে পার্থ কর নামে একজনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাঁকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফেনী সদর হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সোনাগাজী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগের দায়িত্বরত চিকিৎসক আরাফাত হোসেন।

ভুক্তভোগী চাকলাদার এন্ড ভূঞাঁ মৎস্য প্রকপ্লের স্বত্বাধিকারী সোহেল চাকলাদার জানান, এই জায়গাটি পানি উন্নয়ন বোর্ড থেকে ইজারা নিয়ে মৎস্য প্রকল্প তৈরী করে বিগত প্রায় চার বছর যাবত আমি ভোগ দখলে আছি। কিছুদিন আগে জাতীয় পার্টির নেতা সিরাজের নেতৃত্বে রাতের আঁধারে ভারী স্কেভেটার দিয়ে আমার প্রকল্পে মাটি সংস্কার শুরু করে। বিষয়টি জানতে পেরে আমি সোনাগাজী মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দিলে উভয় পক্ষকে ঢেকে পাঠায় তদন্তকারী কর্মকর্তা উপপরিদর্শক মাহবুব আলম সরকার, আমি সকল বৈধ কাগজপত্র নিয়ে নির্দিষ্ট তারিখে থানায় হাজির হলেও সিরাজ ও তার লোকজন হাজির হয়নি।
আমি নিরুপায় হয়ে বিষয়টি সুরাহার জন্য পানি উন্নয়ন বোর্ড কে অবগত করলে, পাউবোর মালিকানাধীন ভূমি চিহ্নিত করতে দুই কর্মকর্তা সহ তাদের সার্ভেয়ার নিয়ে এসে পরিমাপ করার প্রাক্কালে সিরাজ ও তার লোকজন হঠাৎ লাঠিসোটা নিয়ে এসে হামলা চালায়। আমি এই ঘটনায় থানায় অভিযোগ দিয়েছি, আমি হামলাকারীদের বিচার ও প্রশাসনের সহযোগিতা চাই।

অভিযুক্ত জাতীয় পার্টি নেতা হাজী সিরাজুল ইসলাম অভিযোগ অস্বীকার করে উল্টো ভুক্তভোগী সোহেল চাকলাদার তার ভূমি দখল করেছে এবং হামলা করেছে বলে জানান। এছাড়াও তিনি থানায় অভিযোগের প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানান।

মুহুরী প্রজেক্ট আনসার ফাঁড়ির ইনচার্জ মফিজুল হক জানান, পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে পরিমাপ কালে দুই পক্ষের হাতাহাতি ও বিরোধ শুরু হলে পরিমাপ বন্ধ করে তারা চলে যান।

পানি উন্নয়ন বোর্ড ফেনীর এডি জহির উদ্দিন জানান, পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃক সোহেল চাকলাদার কে ভূমি ইজারা দেওয়া হয়। ইজারাকৃত ভূমির সীমানা নিয়ে বিরোধের খবর পেয়ে আমরা সরেজমিন পরিমাপ করতে গিয়েছিলাম, সেখানে পরিমাপ কালে কিছু লোক হাতাহাতি মারামারি শুরু হলে আমরা চলে আসি।

সোনাগাজী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মুঃ খালেদ হোসেন দাইয়্যান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এই ঘটনায় ২টি অভিযোগ পেয়েছি, তদন্ত পূর্বক প্রয়েজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

উল্যেখ্য, ফেনী সোনাগাজীতে এমপি মাসুদ চৌধুরী ও সাবেক এমপি হাজী রহিম উল্যাহ এর নাম ভাঙ্গিয়ে সদর ইউনিয়নের থাক খোয়াজের লামছি ও চর খোন্দকার মোজায় ভূমি দখল ও মৎস্য প্রকল্প নির্মাণ করেন সোনাগাজী উপজেলা জাতীয় পার্টির সদস্য সচিব সিরাজুল ইসলাম ২১ সালের ২২শে ফেব্রুয়ারী দিনব্যাপী সোনাগাজীর মুহুরী প্রজেক্ট সংলগ্ন ফেনী নদী ও শাখা খাল দখল করে বাঁধ দিয়ে ভূমি দখলের বিরুদ্ধে সোনাগাজী উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি জাকির হোসেনের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়। এসময় বাঁধ ভেঙে দিয়ে ৮ ঘন্টাব্যাপী চলা অভিযানে প্রায় ৪৬ একর সরকারি খাস জমি উদ্ধার করা হয়। সোনাগাজী উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি ও নির্বাহী ম্যজিস্ট্রেট জাকির হোসেন জানান- পরিচালিত ভ্রাম্যমাণ আদালত অনৈক সিরাজুল ইসলাম অর্থদন্ড প্রদান করেন।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button