sliderস্থানীয়

প্রেসিডেন্ট জিয়ার মৃত্যু বার্ষিকী পালন নিয়ে স্ট্যাটাস দিলেন ইউপি চেয়ারম্যান

সিরাজুল ইসলাম, সিংগাইর (মানিকগঞ্জ) : মানিকগঞ্জের সিংগাইর উপজেলা বিএনপি ও তার অঙ্গসংগঠনের আয়োজনে মসজিদের ভেতরে ব্যানারে ছবি ব্যবহার করে জিয়াউর রহমানের মৃত্যু বার্ষিকী পালন করা হয়েছে । এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সমালোচনা করে স্ট্যাটাস দিয়েছেন সদর ইউপি চেয়ারম্যান দেওয়ান জাহিনুর রহমান সৌরভ । তিনি বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য ও সাবেক জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জি. মঈনুল ইসলাম খান শান্তর সমর্থক।

জানা গেছে, শুক্রবার ৩১ মে জুম্মার নামাজের পর গোবিন্দল কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে প্রয়াত প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের ৪৩ তম শাহাদৎ বার্ষিকী পালন উপলক্ষে দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করেন জেলা বিএনপির সভাপতি আফরোজা খান রিতা অনুসারীরা। সেখানে ব্যানারে মরহুম প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান, দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানের পাশাপশি জেলা বিএনপির সভাপতি আফরোজা খান রিতা এবং সাধারণ সম্পাদক এস এ জিন্নাহ কবিরের ছবি ব্যবহার করা হয়। মিলাদ মাহফিলে উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান মাহবুবুর রহমান মিঠু ও পৌর বিএনপির সভাপতি অ্যাডভোকেট খোরশেদ আলম ভূইয়া জয়সহ দলীয় কর্মী সমর্থকরা অংশ নেন। এ নিয়ে তার এক দিন পর সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান দেওয়ান জাহিনুর রহমান সৌরভ তার নিজ ফেসবুক আইডি থেকে সমালোচনা করে স্ট্যাটাস দেন। এতে তিনি লিখেন-“ছবিযুক্ত ব্যানার টাঙিয়ে মসজিদে বসে ফটোসেশান কতটুকু যুক্তিসঙ্গত? রাজনীতি করার জন্য বাংলাদেশ পড়ে আছে, মসজিদে কেন?” এ নিয়ে পক্ষে-বিপক্ষে চলছে পাল্টা-পাল্টি মন্তব্য। বিএনপি‘র একাংশ শান্ত গ্রুপের পাশাপাশি ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগ নেতাকর্মীরাও নেতিবাচক মন্তব্য অব্যাহত রেখেছেন।

সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাহিনুর রহমান সৌরভ বলেন, আমরা কখনো চাই না মসজিদ-মাদ্রাসা নিয়ে রাজনীতি হোক। আজ বিএনপি কাল আওয়ামীলীগ করবে। ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে এমনটি মানায় না।
এ ব্যাপারে উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান মাহবুবুর রহমান মিঠু বলেন, এ বিষয়ে আমি কোনো মন্তব্য দিব না। মসজিদের ভেতরে ব্যানার টাঙানো ঠিক হয়নি।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button