sliderস্থানীয়

নিয়ামতপুরে উপজেলা চেয়ারম্যান পদে দুই প্রার্থীর নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত

নিয়ামতপুর (নওগাঁ) প্রতিনিধি: নওগাঁর নিয়ামতপুরে ফেসবুক লাইভে এসে প্রতীক বরাদ্দের পর বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগ তুলে চারজন উপজেলা চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত গ্রহন করেছেন।

রবিবার (০৫ মে) সন্ধ্যায় আলহাজ্ব আবুল কালাম আজাদ ও শ্রী ঈশ্বর চন্দ্র বর্মন ফেসবুক লাইভে এসে নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দেন। নির্বাচন বর্জনকারী হলেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব আবুল কালাম আজাদ, সিনিয়র সহ-সভাপতি শ্রী ঈশ্বর চন্দ্র বর্মন।
গত ২ মে প্রতীক বরাদ্দের পর আবুল কালাম আজাদ কাপ পিরিচ প্রতীক, শ্রী ঈশ্বর চন্দ্র বর্মন ঘোড়া প্রতীক পেয়েছিলেন। প্রতীক বরাদ্দের পর তারা উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় নির্বাচনী গণসংযোগ চালিয়েছেন।

ফেসবুক লাইভ ও লিখিত সূত্রে জানা যায়, উপজেলায় সুষ্ঠু ও প্রতিযোগিতামূলক নির্বাচন করতে আমরা ইতিমধ্যে সব প্রস্ততি সম্পন্ন শেষ করেছি। সরকার ও আওয়ামী লীগ দলের নির্দেশে এবং খাদ্যমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপির ভাবমূর্তি ও সম্মান রক্ষা করার জন্য সবসময় তাকে নিরপেক্ষ রাখার চেষ্টা করেছি। কিন্তু একটি প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী ও তার কর্মী সমর্থকরা আইন ও নির্দেশ অমান্য করে খাদ্যমন্ত্রী ও তার পরিবারের নাম ব্যবহার করছে। আমাদের বিভিন্ন ভাবে ভয় ভীতি দেখিয়ে তারা নির্বাচনী প্রচার প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। উপজেলা আওয়ামী লীগের দলীয় অধিকাংশ নেতাকর্মীরা ইচ্ছার বিরুদ্ধে ঐ প্রতিদ্বন্দ্বির পক্ষে কাজ করতে বাধ্য হচ্ছেন। এমনকি ইউপি চেয়ারম্যানগর্ণকে বাধ্য করা হচ্ছে ঐ পক্ষের হয়ে কাজ করতে নয়তো টিসিবি, ভিজিডি, ভিজিএফ বয়স্ক ও বিধবা ভাতা থেকে তাদের বঞ্চিত করা হবে। এমত অবস্থায় নিয়ামতপুর উপজেলার সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা এবং দলের নেতাকর্মীদের মধ্যে হানাহানি ও দ্বন্দ্ব ইত্যাদি রক্ষায় আমরা নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দিলাম।

উল্লেখ্য, নিয়ামতপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৬ জন মনোনয়ন পত্র দাখিল করেছিলেন। মনোনয়ন পত্র যাচাই-বাছাই শেষে ছয় জন প্রার্থীই প্রতীক পেয়েছিল। এখন নির্বাচনী মাঠে রইলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও বর্তমান উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ফরিদ আহমেদ (মোটরসাইকেল প্রতীক), উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহিদ জাহিদ হাসান বিপ্লব (হেলিকপ্টার প্রতীক), নওগাঁ জেলা আওয়ামী লীগের কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক আবেদ হাসান মিলন (আনারস প্রতীক) ও স্বতন্ত্র প্রার্থী সোহরাব হোসেন।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button