sliderস্থানীয়

কুষ্টিয়ায় অগ্রণী ব্যাংকের শাখা লকডাউন

কুষ্টিয়ায় অগ্রণী ব্যাংকের কুমারখালী শাখা লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। এক সপ্তাহের পাঁচ কর্মকর্তা-কর্মচারী প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হওয়ার পর ব্যাংকের ওই শাখাটি লকডাউন করে হয়।
১০ জুলাই, শুক্রবার সকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রাজীবুল ইসলাম খান এই তথ্য নিশ্চিত করেন।
ব্যাংকটির ওই শাখার ম্যানেজার (এসপিও) হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী। তিনি জানান, ব্যাংকের সিনিয়র এক্সিকিউটিভ অফিসার (এসও) হাসেন আলী প্রথমে করোনায় আক্রান্ত হন। এরপর ৬ জুলাই আরেক কর্মকর্তা (পিও) ইমতিয়াজ জামানেরও করোনা শনাক্ত হয়।
তিনি আরো জানান, তাদের করোনা শনাক্ত হওয়ায় শাখার বাকি কর্মকর্তা-কর্মচারীর নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এতে বৃহস্পতিবার আরো তিনজনের করোনা শনাক্ত হয়। এছাড়াও ব্যাংকের আরো দুই কর্মকর্তা-কর্মচারীর করোনা উপসর্গ রয়েছে।
জেলার অগ্রণী ব্যাংকের ডিজিএম ওয়াহেদুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা চাই না শাখাটি লকডাউন করা হোক। আমরা সীমিত পরিসরে হলেও শাখা চালু রাখার পক্ষে।’
এদিকে জেলার সিভিল সার্জন ডা. এইচএম আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, ‘জনগণের স্বাস্থ্য নিয়ে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ বা কেউ কোনো ঝুঁকি নিতে পারেন না। আমরা তা কোনো অবস্থাতেই মেনে নেব না।’
উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ও উপজেলা করোনা নিয়ন্ত্রণ কমিটির সভাপতি ডা. আকুল উদ্দিন বলেন, ‘ব্যাংক খোলা থাকলে গ্রাহকরা আসবেনই। কোনো অবস্থাতেই তাদের ঠেকানো যাবে না। এ ক্ষেত্রে গ্রাহক, কর্মকর্তা, কর্মচারী সবারই স্বাস্থ্য ঝুঁকি রয়েছে। যে কারণে আমরা ব্যাংকের শাখাটি লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’
প্রসঙ্গত, দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরো ৩৭ জন মারা গেছেন। এ পর্যন্ত মারা গেলেন ২২৭৫ জন। নতুন করে করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন ২৯৪৯ জন। এপর্যন্ত শনাক্ত হলেন ১ লাখ ৭৮ হাজার ৪৪৩ জন। আজ সুস্থ হয়েছে ১৮৬২ জন। এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৮৬ হাজার ৪০৬ জন।
১০ জুলাই, শুক্রবার দুপুর আড়াইটার দিকে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে অনলাইনে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত স্বাস্থ্য বুলেটিনে এ তথ্য জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button