sliderস্থানীয়

উখিয়ায় স্কাস’র উদ্যোগে বর্ণাঢ্য আয়োজনে নারী দিবস পালিত

এইচ.কে রফিক উদ্দিন : কক্সবাজারের উখিয়ায় সমাজ কল্যাণ ও উন্নয়ন সংস্হা(স্কাস)এর আয়োজনে আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালিত হয়েছে।এ উপলক্ষে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালি,আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। মঙ্গলবার সকালে র‌্যালি’টি কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে শুরু স্কাস অফিস চত্বর এসে শেষ হয়।

এবারের প্রতিপাদ্য ছিল ”ডিজিটাল প্রযুক্তি ও উদ্ভাবন জেন্ডার বৈষম্য করবে নিরসন”। অনুষ্ঠানের শুভ উদ্বোধন করেন উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইমরান হোসাইন সজীব। স্কাস হলরুমে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব সমাজ কল্যাণ ও উন্নয়ন সংস্হা (স্কাস)এর চেয়ারম্যান জেসমিন প্রেমা। বক্তব্য দেন কক্সবাজার প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুল ইসলাম, দৈনিক প্রথম আলো পত্রিকার কক্সবাজার ব্যুরো প্রধান আব্দুল কুদ্দুস, উখিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি শেখ মোহাম্মদ আলী, হেড অফ হিউম্যানিটেরিয়ান রেসপন্স (এডুকো) সুমি আক্তার শিউলী, সিসিএনএফ সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম, প্লান ইন্টারন্যাশনাল এনজিও সংস্থার কনসোরসিয়াম ম্যানেজার কামাল হোসেন, টেকনিক্যাল কো-অর্ডিনেটর জোসনা রাণী সরদার, প্লান ইন্টারন্যাশনাল এর আব্দুর রহমান ও রিপোর্টার ইউনিটি সভাপতি শরিফ আজাদ।

এসময় বক্তারা বলেন, নারীদের ক্ষমতায়ন ও উন্নয়নে স্কাস চেয়ারপারসন জেসমিন প্রেমা গুরুত্বপুর্ণ অবদান রাখছেন। তার এই উদ্যোগের মাধ্যমে হাজার হাজার নারী নিজেকে স্বাবলম্বী, যোগ্য, আত্মনির্ভরশীল করে তৈরী করার সুযোগ পাচ্ছে। যা দেশের উন্নয়নে বড় ধরনের ভুমিকা পালন করছে।

স্কাস চেয়ারম্যান জেসমিন প্রেমা বলেন,নারী প্রধান এনজিও হিসেবে স্কাস শত প্রতিকূলতাকে উপেক্ষা করে হাজার হাজার নারীদের উন্নয়নে, ক্ষমতায়নে ১৯৯৫ সাল থেকে কাজ করে যাচ্ছে। কারণ আমরা বিশ্বাস করি নারীদেরও কাজ করার সক্ষমতা রয়েছে, সেই সক্ষমতাকে কাজে লাগাতে পারলে দেশে দক্ষ জনশক্তির পরিমান দ্বিগুন হবে। ফলে আমাদের ৩০ লক্ষ শহীদের বিনিময়ে অর্জিত এই সোনার বাংলাদেশ উন্নয়নশীল থেকে উন্নত দেশে রূপান্তর হবে। তখন আমরা বিশ্বের দরবারে বাঙ্গালী জাতি বলে মাথা উচু করে দাঁড়াতে পারবো, বিশ্ববাসী জানবে বাঙ্গালী জাতি স্বনির্ভরজাতি। তিনি আরো বলেন, সারাদেশে নারীদের কাজের নিরাপদ পরিবেশ সৃষ্টি, নারীর ক্ষমতায়ন ও দক্ষতা অর্জনের লক্ষ্যে স্কাসের কাজের যে দীর্ঘ দিনের অভিজ্ঞতা রয়েছে সেটিকে কাজে লাগিয়ে স্কাস আরো বড় পরিসরে কাজ করতে চায়। এমতাবস্থায় সরকার ও দাতা সংস্থার সহযোগিতা কামনা করছি।

নারী দিবস উপলক্ষে স্কাসের নারী কর্মীরা তিনটি স্টল দেন। এগুলো হলো পিঠা-খাইলে আইয়ুন, স্বপ্ন ছোঁয়া ফুসকা হাউস, TEA & Talk, মেহেদী কর্নার। এসব স্টল গুলো ঘুরে দেখেন অতিথিরা। আলোচনা সভা শেষে কেক কাটা হয়। স্কাস এর সেরা কর্মীদের সম্মাননা স্বারক প্রদান করা হয়। বিকালে স্কাসের কর্মীদের উপস্থাপনায় এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্টানের আয়োজন করা হয়। উক্ত অনুষ্টানে সংগীত, নৃত্য এবং কবিতা আবৃতি করা হয়।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button