sliderরাজনীতিশিরোনাম

আন্তর্জাতিক চক্রান্তের মাধ্যমে আওয়ামী লীগকে অবৈধভাবে ক্ষমতায় বসানো হয়েছে- গয়েশ্বর চন্দ্র রায়

স্বীকৃতি বিশ্বাস, যশোরঃ কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে দলের চেয়ারপার্সন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তি ও দ্রুত বিদেশে নিয়ে উন্নত চিকিৎসার দাবিতে যশোর জেলা বিএনপি কর্তৃক সমাবেশের আয়োজন করা হয়।
আজ বুধবার (৩ জুলাই) বিকালে যশোর টাউন হল ময়দানে এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা বিএনপির আহ্বায়ক অধ্যাপক নার্গিস বেগমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়।
বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু ও নিতাই রায় চৌধুরী, বিএনপির কেন্দ্রীয় খুলনা বিভাগীয় ভারপ্রাপ্ত সাংগঠনিক সম্পাদক অনিন্দ্য ইসলাম অমিত।

জেলা বিএনপি যুগ্ম আহবায়ক দেলোয়ার হোসেন খোকনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেছেন, বাংলাদেশ এখন চলছে লুটেরা ও মাফিয়াদের হাতে। আন্তর্জাতিক চক্রান্তের মাধ্যমে আওয়ামী লীগকে অবৈধভাবে ক্ষমতায় বসানো হয়েছে। তাদের তৈরি বেনজির-আজিজ দেশবাসীর কাছে চিহিৃত হয়েছে। এরা এখন পলাতক ও আত্মগোপনে রয়েছে। এ সরকারের অবস্থাও এক সময় তাদের মতোই হবে। এরা পালিয়ে যাবারও পথ পাবে না। জনগন ধরে তাদেরকে বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করাবে।

বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা গয়েশ্বর চন্দ্র রায় আরও বলেন, স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বিএনপির বিকল্প নেই। দেশ, মাটি ও মানুষ নিয়ে রাজনীতি করে বিএনপি। পক্ষান্তরে আওয়ামী লীগ দেশ বিক্রির রাজনীতি করে। তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ ভারতের কাছে দেশ ইজারা দিয়ে এসেছে। তারই অংশ হিসেবে এখন বাংলাদেশের ভেতর দিয়ে ভারতীয় ট্রেন চলাচল করবে। যা এদেশের মানুষ কখনো চায় না। কিন্তু তাদের কিছু বলা নেই। বর্তমান সরকারের এ জাতীয় অবৈধ কর্মকান্ড প্রতিরোধে জনগনকে এক কাতারে দাঁড়াবার আহ্বান জানান বিএনপি নেতা গয়েশ্বর চন্দ্র রায়।

বুধবার বিকেলে টাউন হল ময়দানে জেলা বিএনপি আয়োজিত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতাকালে তিনি এসব কথা বলেন। কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে দলের চেয়ারপার্সন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তি ও দ্রুত বিদেশে নিয়ে উন্নত চিকিৎসার দাবিতে এ সমাবেশের আয়োজন করা হয়।

সমাবেশ আরও বক্তৃতা করেন জেলা বিএনপির সদস্য সচিব অ্যাড. সৈয়দ সাবেরুল হক সাবু, মোহাম্মদ ইসহক, মিজানুর রহমান খান, আব্দুস সালাম আজাদ, সাবেরা নজমুল মুন্নি, ফারাজী মতিয়ার রহমান, আব্দুল হাই মনা, যুবদলের সভাপতি এম.তমাল আহমেদসহ বিএনপি ও ছাত্রদলের নেতৃবৃন্দ।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button