sliderস্থানীয়

আ’লীগের কেন্দ্রীয় যুব ও ক্রীড়া উপ-কমিটির সদস্য হলেন টুটুল

নাসির উদ্দিন,হরিরামপুর (মানিকগঞ্জ) প্রতিনিধি : ১০ ফেব্রুয়ারি শনিবার আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের স্বাক্ষরিত ১৫৭ সদস্যের কমিটি ঘোষণা করা হয়। এতে মোজাফফর হোসেন পল্টুকে চেয়ারম্যান, হারুনুর রশিদ কো-চেয়ারম্যান এবং মাশরাফী বিন মোর্তজাকে সদস্য সচিব করা হয়।
বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হাসিনার নির্দেশক্রমে দলের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এ কমিটি অনুমোদন দেন।
এবার সংসদ সদস্য, সহযোগী সংগঠনের শীর্ষ নেতৃবৃন্দ, সাবেক ছাত্রলীগ নেতাসহ দেশের বিভিন্ন অঙ্গনের বরেণ্য ব্যক্তিত্বদের প্রাধান্য দিয়ে ২০২৩-২৬ মেয়াদের জন্য আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় যুব ও ক্রীড়া উপ-কমিটি গঠন করা হয়েছে।
আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় যুব ও ক্রীড়া উপ-কমিটির সদস্য মনোনীত করায় আওয়ামী লীগ সভাপতি দেশরত্ন শেখ হাসিনা এবং সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন দেওয়ান শফিউল আরেফিন টুটুল ।

অর্পিত দায়িত্ব নিষ্ঠার সঙ্গে পালনের প্রত্যয় ব্যক্ত করে দেওয়ান শফিউল আরেফিন টুটুল, আমার ওপর যে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে সততা, নিষ্ঠা, মেধা এবং দক্ষতা দিয়ে যথাযথভাবে তা পালন করার সর্বোচ্চ চেষ্টা করবো। নির্বিঘ্নে দায়িত্ব পালন করতে সবার দোয়া ও সহযোগিতা চান দেওয়ান শফিউল আরেফিন টুটুল ।

তৃণমূল থেকে উঠে আসা টুটুল রাজনৈতিক অঙ্গনেও রেখেছেন গুরুত্বপূর্ণ অবদান। ১৯৯৪ সালে সিংগাইর উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্যপদ লাভ, এরপর ২০০২-২০১৬ পযর্ন্ত বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির যুব ও ক্রীড়া সম্পাদকের দায়িত্বও পালন করেন। তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন নিয়ে ২০০১ সালে সংসদ সদস্য পদে মানিকগঞ্জ-০৪ (সিংগাইর ও মানিকগঞ্জ সদরের আংশিক) আসন থেকে নৌকা প্রতীকে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছিলেন। সিংগাইর উপজেলার ১১টি ইউনিয়ন ১টি পৌরসভাকে তার নেতৃত্বে আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, সেচ্ছাসেবকলীগসহ সকল সহযোগী অঙ্গসংগঠনগুলোকে ঢেলে সাজিয়ে সুঙ্খলভাবে তিনি রাজীনিত করেছেন। তিনি কোনো প্রতিহিংসার রাজনীত করেন না। সচ্ছ ও ভালোমানের মানুষ হিসেবে তিনি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এবং মানিকগঞ্জ জেলারবাসীর কাছে সু পরিচিতি লাভ করেছেন এবং ২০২৪ সালে সংসদ সদস্য পদে মানিকগঞ্জ-০২ (সিংগাইর ও হরিরাপুর,মানিকগঞ্জ সদরের আংশিক) আসন থেকে মোড়া প্রতীকে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছিলেন।

দেওয়ান শফিউল আরেফিন টুটুল ১৯৯৮-২০০১, ২০০২ এবং ২০০৮-২০১২ বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালক, ২০১১ সালে বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত ক্রিকেট বিশ্বকাপ আয়োজক কমিটির আহ্বায়ক এবং উদ্বোধনী অনুষ্ঠান আয়োজক কমিটির সদস্য সচিব ছিলেন। তিনি এশিয়া কাপ-২০১২ আয়োজক কমিটির সদস্য সচিব ছিলেন। শ্রীলঙ্কায় অনুষ্ঠিত ২০১২ সালের টি-২০ ক্রিকেট বিশ্বকাপে বাংলাদেশ জাতীয় দলের হেড অব ডেলিগেশন ছিলেন। তিনি বাংলাদেশ অলিম্পিক অ‍্যাসোসিয়েশন ও জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের কার্যকরী কমিটির সাবেক সদস্য এবং বাফুফের টেকনিক্যাল ও সিলেকশন কমিটিরও সাবেক সদস্য ছিলেন। তিনি ২০০৯ সালে ক্রীড়াবিদ ও ক্রীড়া সংগঠক হিসেবে জাতীয় পুরস্কার লাভ করেন। তিনি বাংলাদেশ ক্রীড়া সাংবাদিক সংস্থা এবং ফ্রেন্ডস ক্লাব অব লস অ‍্যাঞ্জেলেস (যুক্তরাষ্ট্র) কর্তৃক আজীবন সম্মাননা পুরস্কার লাভ করেন। এছাড়াও খেলোয়ার ও ক্রীড়া সংগঠক হিসেবে বিভিন্ন সময়ে তিনি অর্জন করেছন বহু মূল‍্যবান পুরস্কার।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button